বাংলা

টি টোয়েন্টি ব্যাটারদের র‍্যাঙ্কিংয়ে ১০০ ধাপ এগিয়ে গেলেন দীনেশ কার্তিক

Dinesh Karthik
Dinesh Karthik. ( Photo Source: BCCI )

আইপিএলের মঞ্চ থেকে ভারতীয় দলে ফেরা। ক্রিকেটের বাইশগজে এবার যেন এক নতুন রূপে ধরে দিয়েছিলেন দীনেশ কার্তিক।  আইপিএলের মঞ্চ থেকে যে দৌড় তিনি শুরু করেছেন, তা দেশের জার্সিতেও অব্যহত। আর সেই পুরষ্কার পেতেও খুব একটা দেরী হল না ভারতীয় দলের এই তারকা উইকেটকিপার ব্যাটারের। এক লাফে ১০০ ধাপ এগিয়ে গেলেন তিনি। টি টোয়েন্টি ক্রিকেটের তালিকায় ৮৭ নম্বরে উঠে এলেন দীনেশ কার্তিক। আর তা দেখেই আপ্লুত সকলে।

এবারের আইপিএলে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর হয়ে দুর্ধর্ষ পারফরম্যান্স প্রদর্শন করেছিলেন দীনেশ কার্তিক। আইপিএলের মঞ্চে তাঁর হাত ধরে বহু ম্যাচে পিছিয়ে পড়েও জয়ের রাস্তা ফিরেছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। আইপিএল শুরুর আগে থেকেই এবার নিজের ভূমিকা নিয়ে স্পষ্ট বার্তা দিয়েছিলেন দীনেশ কার্তিক। আর সেই ফিনিশারের ভূমিকাও পালন করেছিলেন যথাযথভাবে। সেই একই লক্ষ্য রয়েছে তাঁর ভারতীয় দলের জার্সি গায়েও। সেই ঝলক দেখিয়েই তো আইসিসির টি টোয়েন্টিতে ব্যাটারদের তালিকা এক লাফে ১০০ ধাপ এগিয়ে এলেন দীনেশ কার্তিক।

দীর্ঘ তিন বছর পর ফের ভারতীয় দলের জার্সিতে ফিরেছেন দীনেশ কার্তিক। আইপিএলে তাঁর পারফরম্যান্স দেখার পরই  দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে টি টোয়েন্টি সিরিজে দীনেশ কার্তিককে দলে ফেরানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন নির্বাচকরা। তাঁর হাত ধরেই দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে এই সিরিজে পিছিয়ে থেকেও ফিরে এসেছিল ভারত। দীনেশ কার্তিকের এমন পারফরম্যান্সের পুরষ্কার পেতেও খুব একটা দেরী হল না। এবার আইসিসির র্যাঙ্কিংয়েও বিরাট উন্নতি হল তাঁর।

রাজকোটে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ২৭ বলে ৫৫ রান করেছিলেন দীনেশ কার্তিক

২০১৯ সালে শেষবার ভারতীয় দলের জার্সিতে দেখা গিয়েছিল দীনেশ কার্তিককে। এরপর থেকেই আর ভারতীয় দলে সুযোগ হয়নি তাঁর। আইপিএলে এবার রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর হয়ে নেমেছিলেন দীনেশ কার্তিক। সেই মঞ্চেই ফিনিশারের ভূমিকায় নিজের দক্ষতার পরিচয় দিয়েছিলেন দীনেশ কার্তিক। সেখানেই একের পর এক ম্যাচ বেঙ্গালুরু জিতেছিল তাঁর হাত ধরে। আইপিএলে ৩৩০ রান রয়েছে দীনেশ কার্তিকের। সেইসঙ্গে স্ট্রাইকরেট রয়েছে দেড়শোর ওপরে।

শুধু তাই নয় এবারের আইপিএলে সর্বোচ্চবার অপরাজিত থাকার রেকর্ডও গড়েছেন তিনি। এরপরই ভারতীয় দলে সুযোগ পান দীনেশ কার্তিক। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে চতুর্থ টেস্টে ফের একবার দেখা গিয়েছিল তাঁর বিধ্বংসী রূপ। শেষ পাঁচ ওভারে একাই শেষ করে দিয়েছিলেন প্রতিপক্ষ বোলারদের। দীনেশ কার্তিকের ২৭ বলে ৫৫ রানের ইনিংসেই সেদিন ভারতীয় দল জয়ের রাস্তা এগোতে পেরেছিল। তাঁর স্ট্রাইকরেট সেদিন ছিল প্রায় ২০০।

টি টোয়েন্টিতে ব্যাটারদের তালিকায় এতদিন ১৯৫ স্থানে ছিলেন দীনেশ কার্তিক। কিন্তু এমন পারফরম্যান্সের পর ১০০ ধাপ এগিয়ে গিয়েছেন দীনেশ কার্তিক। সামনে আরও টি টোয়েন্টি সিরিজ রয়েছে। সুযোগ পেলে যে দীনেশ কার্তিক প্রথম দশের মধ্যেও চলে আসতে পারেন তা বলাই বাহুল্য।