বাংলা

কিউইদের বিরুদ্ধে জেমস অ্যান্ডারসনকে বিশ্রাম, ভারতের বিরুদ্ধে এজবাস্টন টেস্টেই ফোকাস ইংল্যান্ডের

James Anderson
James Anderson. (Photo by Visionhaus/Getty Images)

নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজ জয় আগেই হয়ে গিয়েছে। তৃতীয় টেস্ট জিততে পারলে নিউ জিল্যান্ডকে হোয়াইট ওয়াশ করবে ইংল্যান্ড। কিন্তু সেদিকে এখন আর বেশী নজর নেই ব্রিটিশ শিবিরের। নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে শেষ টেস্টে নামার আগে ইংল্যান্ডের ফোকাস এখন থেকেই ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজের দিকে। ঘরের মাঠে সিরিজ বাঁচাতে হলে জিততেই হবে এই ম্যাচ। আর সেই কারণেই দলের সবচেয়ে প্রধান অস্ত্রকে সামলে রাখার সিদ্ধান্তই নিয়েছে ব্রিটিশ বাহিনী। নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে শেষ টেস্টে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে জেমস অ্যান্ডারসনকে।

আগামী ১ জুলাই ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে তাদের মাঠে নামবে ভারত। ২০২১ সালের সিরিজের শেষ ম্যাচ খেলা হবে ১ জুলাই থেকেই। এই টেস্ট ড্র করতে পারলেই ইংল্যান্ডের মাটিতে সিরিজ জিতে রেকর্ড গড়বে টিম ইন্ডিয়া। অন্যদিকে ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজ বাঁচানোই প্রধান লক্ষ্য ব্রিটিশ বাহিনীর। জো রুটের পরিবর্তে এবার ইংল্যান্ডের নেতৃত্বের ভার বেন স্টোকসের কাঁধে। আর ভারতের বিরুদ্ধে তাদের প্রধান অস্ত্র যে জেমস অ্যান্ডারসন তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

২০২১ সালের সিরিজে ভারতীয় ব্যাটারদের বিরুদ্ধে ব্রিটিশ বাহিনী মধ্যে সবচেয়ে সফল বোলার ছিলেন জেমস অ্যান্ডারসন। শুধু তাই নয় নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধেও তাঁর হাত থেকে এসেছে সাফল্য। সেজন্যই দলের এমন শক্তিশালী অস্ত্রকে নিয়ে ঝুঁকি নিতে চায়না ইংল্যান্ড টিম ম্যানেজমেন্ট। তাঁর গোড়ালীতে হাল্কা চোট রয়েছে। খুব একটা বড়সড় চোট না হলেও, তাঁকে বিশ্রাম দেওয়ারই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ব্রিটিশ বাহিনী।

ভারতের বিরুদ্ধে ১ ম্যাচে ৩৪টি উইকেট রয়েছে জেমস অ্যান্ডারসনের

ইংল্যান্ডের অধিনায়ক “এই প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, জিমির জন্য একা খুবই দূর্ভাগ্যজনক হলেও, সামনেই ভারতের বিরুদ্ধে আমাদের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ টেস্ট ম্যাচ রয়েছে। আমি জানি না কতটা বড়সড় সেই চোট রয়েছে। তবে তাঁর গোড়ালীতে হাল্কা চোট রয়েছে”।

২০২১ সালে অলি রবিনসনের সঙ্গে জুটি বেঁধে ভারতীয় বোলারদের বিরুদ্ধে দুর্ধর্ষ বোলিং পারফরম্যান্স দেখিয়েছিলেন জেমস অ্যান্ডারসন। চার ম্যাচে তিনি একাই পেয়েছিলেন ১৫টি উইকেট। আর সেই কারণেই যে এই তারকা বোলারকে এমন ম্যাচে বিশ্রামের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন স্টোকস এবং ব্রেন্ডন ম্যাকালাম। তা বেশ স্পষ্ট।

ভারতের বিরুদ্ধে বরাবরই ভাল পারফরম্যান্স প্রদর্শন করেছেন জেমস অ্যান্ডারসন। এখনও পর্যন্ত ভারতের বিরুদ্ধে ১৩টি টেস্ট খেলে ৩৪টি উইকেট রয়েছে এই তারকা ব্রিটিশ বোলারের। ভারতের বিরুদ্ধে সম্পূর্ণ সুস্থভাবেই তাঁকে মাঠে নামাতে চায় ব্রিটিশ বাহিনী। নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে শেষ টেস্ট যদি পঞ্চম দিন পর্যন্ত চলে, তবে ভারতের বিরুদ্ধে নামার আগে মাত্র ৩দিন সময় পাবে ইংল্যান্ড।

সমস্তকিছু হিসাব করেই জেমস অ্যান্ডারসনের মতো তারকাকে বিশ্রামে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ব্রিটিশ টিম ম্যানেজমেন্ট। নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে দুর্ধর্ষ ফর্মে রয়েছেন অ্যান্ডারসন। ভারতের বিরুদ্ধেও যাতে সেই একই ঝলক তার হাত থেকে দেখা যায়, সেদিকেই নজর ব্রিটিশ টিম ম্যানেজমেন্টের।